সভ্যতার আলো

সভ্যতার আলো, তার লিখনী দিয়ে আরো উন্নত ও সমৃদ্ধশালী সভ্য জাতি গঠনে অনন্য ভূমিকা রাখবে

রাখাইনে ত্রাণ বিতরণের সুযোগ দেবে মিয়ানমার

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে জাতিসংঘকে ত্রাণ সহায়তা দেয়ার সুযোগ দেবে দেশটি।

রাখাইনের উত্তরাঞ্চলে রোহিঙ্গা অধ্যুষিত এলাকায় ত্রাণ তৎপরতার সুযোগ দিতে মিয়ানমার রাজি হয়েছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব খাদ্য সংস্থা।

বিশ্ব খাদ্য সংস্থার মুখপাত্র বেটিনা ল্যুশার শুক্রবার জেনেভায় সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ওই এলাকায় ত্রাণ তৎপরতা শুরুর জন্য তারা মিয়ানমার থেকে ‘সবুজ সংকেত’ পেয়েছেন। তবে এ বিষয়ে মিয়ানমার সরকারের সঙ্গে এখনও আলোচনা চলছে।

তিনি বলেন, ঠিক এ মুহূর্তে সেখানে কী অবস্থা তা এখনই বলা যাবে না। ওই এলাকার পরিস্থিতি আমাদের আগে দেখতে হবে। তার আগে বিস্তারিত বলা সম্ভব না।

ইউনিসেফের মুখপাত্র মারিক্সি মেরকাডো জেনেভায় ব্রিফিংয়ে বলেন, সেনা অভিযান শুরুর আগে রাখাইনের বুথিডং ও মংডুতে রোহিঙ্গা শিশুদের মধ্যে অপুষ্টির হার বিপজ্জনক মাত্রায় ছিল। সেখানে চার হাজার শিশুকে মারাত্মক অপুষ্টির চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল। সেনা অভিযানের ফলে ২৫ আগস্ট থেকে ওই কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে।

এর আগে ইউনিসেফের এক প্রতিবেদনে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা শিশুদের মধ্যে দীর্ঘদিনের অপুষ্টির কারণে মারাত্মক ঝুঁকির চিত্র প্রকাশ করা হয়।

ওই প্রতিবেদনের পর মিয়ানমার ওই সবুজ সংকেত দিয়েছে।

২৫ আগস্ট সেনা অভিযান শুরু হওয়ার পূর্ব পর্যন্ত ১০ হাজার মানুষের মধ্যে বিশ্ব খাদ্য সংস্থার পক্ষ থেকে রেশন হিসেবে খাবার বিতরণ করা হতো।

ইউনিসেফের হিসাবে, বাংলাদেশে রোহিঙ্গা ক্যাম্পগুলোতে পাঁচ বছরের কম বয়সী শিশুর সংখ্যা প্রায় সাড়ে ৩ লাখ, যা মোট রোহিঙ্গা সংখ্যার এক-তৃতীয়াংশ। আর এই শিশুদের প্রতি পাঁচজনের মধ্যে একজন মারাত্মক পুষ্টিহীনতার শিকার।

Leave a Reply

Your email address will not be published.